1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha : Sardar Dhaka
  2. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
  3. rafiqul@mohajog.com : Rafiqul Islam : Rafiqul Islam
  4. sardar@mohajog.com : Shahjahan Sardar : Shahjahan Sardar
শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:৩১ পূর্বাহ্ন

সুন্দরবন রক্ষায় ‘বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ’ দিবসের কর্মসূচি

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : শনিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০১৬
  • ২৭৮ বার

প্রতিবেদক : রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মানের প্রতিবাদে আগামী ৭ জানুয়ারি বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ দিবস পালনের কর্মসূচী দিয়েছে তেল-গ্যাস-বন্দর-বিদ্যুৎ রক্ষা জাতীয় কমিটি। শনিবার কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে এই কর্মসূচির ঘোষণা দিয়েছেন কমিটির সদস্য সচিব আনু মুহাম্মদ।

শনিবার রামপাল বিদ্যুৎকেন্দ্র বিরোধী মিছিল বের করা হয় কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে।

মিছিল শেষে আনু মোহাম্মদ বলেন, “রামপাল প্রকল্পসহ সুন্দরবনবিনাশী সব অপতৎপরতা বন্ধ এবং জাতীয় কমিটির ৭ দফা বাস্তবায়নের দাবিতে আগামী ২৬ ডিসেম্বর দেশব্যাপী দাবি দিবস, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করা হবে। ৭ জানুয়ারি বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ দিবস পালন করা হবে।”

তেল-গ্যাস কমিটির অন্য কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে ১৪ জানুয়ারি দেশবাসীর সামনে জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতের জন্য সুলভ, টেকসই, পরিবেশ ও জনস্বার্থ অনুকূল বিকল্প মহাপরিকল্পনা উপস্থাপন, একইসঙ্গে সারা দেশে জেলা ও বিভাগী শহরে সমাবেশ।

এই সময়ের মধ্যে দাবি পূরণ না হলে ২৬ জানুয়ারি ঢাকা মহানগরে আধাবলা সাধারণ ধর্মঘট  পালন এবং পরবর্তী কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে জানান অধ্যাপক আনু মুহাম্মদ।

ভারতের সঙ্গে যৌথ উদ‌্যোগে বাস্তবায়নাধীন রামপাল তাপবিদ‌্যুৎ কেন্দ্রের প্রভাবে বিশ্ব ঐতিহ‌্য সুন্দরবন হুমকির মুখে পড়বে দাবি করে এই নাগরিক সংগঠনটি এর আগে রামপাল অভিমুখে পদযাত্রা কর্মসূচি পালন করেছিল।

সুন্দরবনের কাছে রামপাল বিদ্যুৎ কেন্দ্র প্রকল্প বাতিলের দাবিতে পদযাত্রাসহ বিভিন্ন কর্মসূচি পালনের পর এবার বিশ্বব্যাপী প্রতিবাদ দিবস পালনের ডাক দিয়েছে তেল-গ্যাস-খনিজ সম্পদ ও বিদ্যুৎ-বন্দর রক্ষা জাতীয় কমিটি।

এর ধারাবাহ্তিায় গত ২০ অগাস্ট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে অবস্থান কর্মসূচি পালিত হয়।ওইদিন আনু মুহাম্মদ দাবি পূরণে সরকারকে ২৩ নভেম্বর পর্যন্ত সময় বেঁধে দিয়ে ‘চল চল ঢাকা চল’ কর্মসূচি এবং কয়লাভিত্তিক বিদ্যুৎ প্রকল্পসহ সুন্দরবনের ক্ষতি হয় এমন সব চুক্তি বাতিলসহ সাত দাবিতে ২৬ নভেম্বর ঢাকায় মহাসমাবেশের কর্মসূচি দিয়েছিলেন।

সমাবেশে আনু মুহাম্মদ সবার প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, “শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস ও বিজয় দিবসে সুন্দরবন রক্ষার আওয়াজ নিয়ে শহীদদের স্মরণ করুন। সারা দেশে নিজ নিজ উদ্যোগে সুন্দরবনের জন্য গান, নাটক ও তথ্যচিত্র তৈরি করুন। সভা-সমাবেশ, মানববন্ধন, সাইকেল মিছিল ও নৌকা মিছিলসহ বিভিন্নমাত্রিক প্রচার ও প্রতিবাদ কর্মসূচি গ্রহণ করুন।”

সমাবেশের পর কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার থেকে একটি মিছিল বের করা হয়।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 Mohajog