1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha :
  2. mohajog@yahoo.com : Daily Mohajog : Daily Mohajog
  3. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
বৃহস্পতিবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২১, ০৯:৫১ অপরাহ্ন

হোয়াইট হাউসে সাংবাদিক প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা দিতে পারেন ট্রাম্প !

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৬ জানুয়ারী, ২০১৭
  • ১৩৮ বার

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : হোয়াইট হাউসে সাংবাদিকদের প্রবেশের ক্ষেত্রে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করতে পারেন নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। ট্রাম্পের একজন সহযোগী সাংবাদিকদের ‘বিরোধী দল’ হিসেবে চিহ্নিত করার পর হোয়াইট হাউসে সাংবাদিক প্রবেশে নিধেধাজ্ঞা জারির গুঞ্জন ওঠে। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য ইনডিপেনডেন্ট এই খবর জানিয়েছে।
সম্প্রতি সাংবাদিকরা হোয়াইট হাউসের পশ্চিমাংশের একটি স্থানে বসে থাকেন, যেখানে হাউসের প্রেস সেক্রেটারি নিয়মিত বিবৃতি দিয়ে থাকেন। প্রেসিডেন্ট নিজেও সেখানেই সংবাদ সম্মেলন করেন।
তবে স্থানীয় এক সংবাদমাধ্যমসূত্রে দ্য ইন্ডিপেনডেন্ট জানিয়েছে, সত্যিই ট্রাম্প শাসনামলে সেইখানে সাংবাদিকদের জায়গা দেওয়া হবে কিনা, তা ভেবে দেখছে ট্রাম্প-প্রশাসনের উপদেষ্টারা। বেনামি সূত্রে ট্রাম্পের এমনই একজন উপদেষ্টা ওই সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘তারা হলো বিরোধী দল। আমি চাই, তারা হোয়াইট হাউসের বাইরে অবস্থান করে খবর সংগ্রহ করবে। হোয়াইট হাউসের প্রেস রুমটা আমরা সম্ভবত আর রাখছি না।’
ট্রাম্পের প্রেস সেক্রেটারি জানিয়েছেন, বিষয়টি নিয়ে ভাবনাচিন্তা চলছে। তিনি দাবি করেন, আসলে প্রচুর সাংবাদিক ট্রাম্পের নিউজ কাভার করতে চায় বলেই বিকল্প পথ নিয়ে আলোচনা করছেন তারা।
উল্লেখ্য, নির্বাচিত হওয়ার পরপরই শীর্ষস্থানীয় সম্প্রচারমাধ্যমের প্রতিনিধিদের সঙ্গে নবনির্বাচিত মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের অফ দ্য রেকর্ড সাক্ষাৎকার সম্পন্ন হয়। এর প্রতিক্রিয়ায় ‘মিডিয়ার বিরুদ্ধে ট্রাম্পের যুদ্ধ’ শিরোনামে খবর লেখে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো। ঘটনার একদিনের মাথায় নিউ ইয়র্ক টাইমস-এর সঙ্গের এক বৈঠককে ঘিরে ওই পত্রিকার সঙ্গে ‘যুদ্ধে’ জড়ান ট্রাম্প। তবে নির্বাচনি প্রচারণাকালের বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমের খবর বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, সেই প্রচারণার শুরু থেকেই কর্পোরেট সংবাদমাধ্যমকে তার প্রতি বৈরি হিসেবে বিবেচনা করে যাচ্ছেন ট্রাম্প।
মার্কিন মিডিয়া যাকে তাদের বিরুদ্ধে ঘোষিত ট্রাম্পের যুদ্ধ বলেছে, বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমের খবর বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে সেই যুদ্ধটা একপাক্ষিক নয়। যুদ্ধটা যে ট্রাম্পের দিক থেকে এককভাবে ঘোষণা করা হয়নি, তার প্রমাণ মেলে হিলারির প্রতি মার্কিন মিডিয়ার পক্ষপাতে। নির্বাচনকালে হিলারির প্রতি পক্ষপাত আড়াল করতে সক্ষম হয়নি মূলধারার মার্কিন মিডিয়াগুলো। উইকিলিকসে ফাঁস হওয়া তথ্য, ভোটারদের ওপর পরিচালিত বিভিন্ন জরিপ আর বিশ্লেষকদের কথায় সেই পক্ষপাত স্পষ্ট হয়েছে। ট্রাম্প হুমকি দিচ্ছেন আইনি পথে মিডিয়াকে রুদ্ধ করবেন তিনি। বিপরীতে তার বিরুদ্ধে আরও সোচ্চার হওয়ার পাল্টা হুমকি দিয়ে যাচ্ছে মিডিয়া। তবে পারস্পরিক যুদ্ধ কিংবা বৈরিতার বিপরীত দিকও রয়েছে। সম্পর্ককে স্বাভাবিকীকরণের প্রচেষ্টাও চলছে দুই পক্ষের তরফ থেকেই।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Mohajog