1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha : Sardar Dhaka
  2. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
  3. rafiqul@mohajog.com : Rafiqul Islam : Rafiqul Islam
  4. sardar@mohajog.com : Shahjahan Sardar : Shahjahan Sardar
রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ১১:০৩ পূর্বাহ্ন

ফায়ার সার্ভিস কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে জঙ্গিরা: পুলিশ

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১১ মে, ২০১৭
  • ৯০ বার

প্রতিবেদক: রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে ‘জঙ্গি আস্তানায়’ পুলিশের অভিযানকালে ফায়ার সার্ভিসের সদস্য আবদুল মতিনকে (৪৫) কুপিয়ে হত্যা করার পর ‘আত্মঘাতী বিস্ফোরণে’ পাঁচ জঙ্গি নিহত হন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে বুধবার রাত থেকেই বাড়িটি ঘিরে রাখে পুলিশ। সকালের দিকে হঠাৎ করেই আস্তানা থেকে বের হয়ে আসেন নারী-পুরুষসহ বেশ কয়েকজন। তারা পুলিশকে লক্ষ্য করে বোমার বিস্ফোরণ ঘটান, কুপিয়ে হত্যা করেন ফায়ার সার্ভিসের সদস্য আবদুল মতিনকে (৪৫)। এ সময় পুলিশ গুলি চালায়। পরে ‘আত্মঘাতী বিস্ফোরণে’ পাঁচ জঙ্গি নিহত হন।

প্রত্যক্ষদর্শী একজন স্থানীয় সাংবাদিক বলেন, বাড়িটি পুলিশ ঘিরে রাখা অবস্থায় সকাল আটটার দিকে ধারালো অস্ত্র, শাবল ও বল্লম হাতে কয়েকজন নারী-পুরুষ সেখান থেকে বের হয়ে ধানখেতে অবস্থান নিয়ে থাকা পুলিশের দিকে ছুটে যান। তারা কয়েকটি বোমার বিস্ফোরণ ঘটান। এ সময় একজন নারী ও একজন পুরুষ মিলে ফায়ার সার্ভিসের সদস্য আবদুল মতিনকে এলোপাতাড়ি কোপাতে থাকেন। পাশে থাকা পুলিশ গুলি ছুড়েও তাদের নিবৃত্ত করতে পারেনি। জঙ্গিরা পুলিশের দিকেও ধেয়ে আসার চেষ্টা করে। পুলিশ গুলি করে তাদের প্রতিরোধ করে। এর মধ্যেই হামলাকারী জঙ্গিরা সবাই আত্মঘাতী বিস্ফোরণে নিহত হয় বলে পুলিশ জানায়।

আবদুল মতিনের বাড়ি গোদাগাড়ীর মাটিকাটায়। তার লাশ রাজশাহী মেডিকেল কলেজ মর্গে নিয়ে যাওয়া হয়েছে ময়নাতদন্তের জন্য। মর্গ সূত্র জানিয়েছে, নিহতের শরীরে বিশেষ করে মাথায় কোপের অনেকগুলো গভীর ক্ষত রয়েছে। ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার বাম কানটি প্রায় বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

জঙ্গিদের হামলা ও বিস্ফোরণে আহত চার পুলিশ সদস্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের দুটি ওয়ার্ডে ভর্তি আছেন। তাদের কারো কারো শরীরে বোমার স্প্লিন্টারের আঘাত রয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্র জানিয়েছে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 Mohajog