1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha :
  2. mohajog@yahoo.com : Daily Mohajog : Daily Mohajog
  3. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
বুধবার, ২৬ জানুয়ারী ২০২২, ০১:৩৫ অপরাহ্ন

নাইরোবিতে শুধুমাত্র নারীদের অ্যাপভিত্তিক ট্যাক্সিক্যাব সেবা

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮
  • ১৩৮ বার

গত কয়েকবছরে কেনিয়ার নাইরোবিতে ট্যাক্সি ভাড়া করার বেশ কয়েকটি অ্যাপ চালু হয়েছে। দুর্বল গণ পরিবহন আর মোবাইল ফোনের সহজলভ্যতার কারণে শহরের বাসিন্দাদের কাছে নিরাপদ আর সাশ্রয়ী বাহনের চাহিদা বাড়ছে।

সম্প্রতি এখানে যোগ হয়েছে ‘আ’ন-নিসা’ নামের নতুন একটি অ্যাপ, যা শুধুমাত্র নারীদের জন্য ট্যাক্সি সেবা দেবে। এসব গাড়ির চালাচ্ছেনও নারীরা। খবর বিবিসি।

নতুন এই অ্যাপ ব্যবহার করে সেই নারীরা ট্যাক্সি সেবা ব্যবহার করতে পারবেন যারা ধর্মীয় বা নিরাপত্তার কারণে পুরুষদের চালিত গাড়িতে চড়তে চান না।

নাইরোবি শহরে ১০ হাজার ট্যাক্সি ক্যাব রয়েছে বলে ধারণা করা হয়, যেগুলো প্রতিটি প্রতিদিন গড়ে অন্তত চারটি ট্রিপ দিয়ে থাকে। সবমিলিয়ে তাদের প্রতিদিন প্রায় ২ লাখ ডলারের ব্যবসা হয়।

এর ফলে এই খাতে উবার, ট্রাক্সিফাইয়ের মতো বিনিয়োগকারীদের আগ্রহ বাড়ছে, অনেক নতুন কোম্পানি যোগ হচ্ছে। এখানে সর্বশেষ যোগ হয়েছে আন নিসা, একটি অনলাইন সার্ভিস, যারা শুধুমাত্র নারীদের ট্যাক্সি ক্যাবের সেবা দেবে।

এই অ্যাপের উদ্যোক্তা মেহনাজ সারওয়ার, যার তিনটি সন্তান রয়েছে। পুরুষ চালিত ট্যাক্সি ক্যাবে কয়েকটি তিক্ত অভিজ্ঞতার শিকার হওয়া এবং এরকম গাড়িতে অনেক নারী হামলার শিকার হওয়ার ঘটনা জানার পর, এই অভিনব পরিকল্পনা তার মাথায় আসে।

তিনি বলছেন, আরবি শব্দ ‘আন-নিসা’র মানে নারী। আমার ধর্মবিশ্বাস থেকে এটার চিন্তা এসেছে, কিন্তু এর সঙ্গে মার্কেটিংয়ের বিষয়ও জড়িত আছে। এটা সহজে উচ্চারণ করা যায়, সহজে মনে রাখা যায়। অনেক মানুষ একে সহজেই গ্রহণ করেছে।

‘অনেক নারী আমাদের জানিয়েছেন, যখন তারা পুরুষ চালকের কোন ট্যাক্সি ক্যাবে ওঠেন, তারা দুইবার ভেবে দেখেন যে সেখানে চাইল্ড লক খোলা আছে কিনা বা কোন সমস্যা হলে বেরিয়ে যাবার পথ আছে কিনা। সুতরাং আমি ভাবলাম, সেখানে অনিরাপত্তার ব্যাপার আছে, সুতরাং শুধুমাত্র নারীদের জন্য আমরা একটি অ্যাপ আনতে পারি। এই শিল্পে এর মধ্যেই অনেক নারী কাজ করছে। সুতরাং নারী ড্রাইভার খুঁজে পাওয়াও সহজ, আর এর মাধ্যমে তাদের নতুন কাজের সুযোগও তৈরি হচ্ছে’।

যদিও বেশিরভাগ পুরুষ চালকদের কাছ থেকে নারীদের জন্য ঝুঁকির কিছু নেই, তারপরেও একজন নারী চালকের কাছে অনেক মহিলা যাত্রী নিরাপদ বোধ করেন।

কেন নারী অধ্যূষিত এই সেবাকে স্বাগত জানাচ্ছে কেনিয়ানরা?
আন নিসা এরমধ্যেই শহরে আলোচনা তৈরি করেছে এবং নারীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। আন নিসার ট্যাক্সি ব্যবহারকারী একজন যাত্রী মোকালি মানগিসা বলছেন, ‘একজন নারী চালক থাকায় আমি অনেক বেশি নিরাপদ বোধ করি। গাড়ি চালানোর সময় নারী চালকরা অনেক বেশি সতর্ক থাকে’।

মানগিসার এই ট্যাক্সির চালক ফরিদা খামিস। তিনি বলছেন, ট্যাক্সি ক্যাবের ক্ষেত্রে এই নিরাপত্তা বোধের বিষয়টি যাত্রী এবং চালক, উভয়ের জন্যই পারস্পরিক একটি বিষয়।

‘নারী যাত্রীদের নিয়ে গাড়ি চালানোর সময় আমিও অনেক নির্ভার থাকি। গাড়ি ছিনতাই বা যৌন হয়রানির কথা চিন্তা করলে একজন চালক হিসাবে আমার জন্য এটা অনেক বেশি নিরাপদ’।

মেহনাজের এই ব্যবসা নীতি নিয়ে অনেকে প্রশ্নও তুলেছেন। নারীদের জন্য নির্দিষ্ট করার কারণে কেউ কেউ এটাকে বৈষম্যমূলক বলেও বলছেন। কিন্তু তা মানতে রাজি নন মেহনাজ সারওয়ার।

তিনি বলছেন, ‘পুরুষদের জন্য তো অনেক বিকল্প পরিবহন আছে। তারা উবার, ট্যাক্সিফাই ব্যবহার করতে পারে। সুতরাং, কেন তারা এটা ভাববে? আমরা কোন বৈষম্য করছি না। এটা আসলে নারীদের আরো বেশি ক্ষমতায়নের বিষয়। পুরুষ তান্ত্রিক এই ব্যবসা জগতে এটা মেয়েদের নিজস্ব একটি প্লাটফর্ম পাওয়া। আমরা মেয়েদের নিজস্ব চাহিদার একটি জায়গা করে দিয়েছি, যেটা আগে ছিল না’।

তবে আন নিসার মতো শুধুমাত্র নারীদের জন্য ট্যাক্সি সেবা চালু হয়েছে বিশ্বের অনেক দেশেই। যা সব জায়গাতেই যানবাহনে নারী যাত্রীদের নিরাপত্তা নিয়ে উদ্বেগের বিষয়টি তুলে ধরছে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Mohajog