1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha :
  2. mohajog@yahoo.com : Daily Mohajog : Daily Mohajog
  3. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
বৃহস্পতিবার, ১৫ এপ্রিল ২০২১, ১০:৫২ পূর্বাহ্ন

৬০০ করদাতা পাচ্ছেন ট্যাক্স কার্ড ও সম্মাননা

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : বৃহস্পতিবার, ১ এপ্রিল, ২০২১
  • ২০ বার

রাজস্ব খাতে বিশেষ অবদান রাখায় ২০১৯-২০২০ কর বছরে দেশের ৬০০ করদাতা পাচ্ছেন ট্যাক্স কার্ড ও সম্মাননা। সেই সঙ্গে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামালের একটি শুভেচ্ছা বার্তা।

বৃহস্পতিবার (১ এপ্রিল) অর্থ মন্ত্রণালয় সূত্রে জানা গেছে, ইতোমধ্যে ডাকের মাধ্যমে ট্যাক্সকার্ড পাওয়া ব্যক্তি ও সংস্থাকে অর্থমন্ত্রীর শুভেচ্ছা বার্তা পাঠানো হয়েছে।

ট্যাক্স কার্ড পাওয়া করদাতাদের উদ্দেশ্যে লেখা অর্থমন্ত্রীর শুভেচ্ছা বার্তায় বলা হয়েছে, ‘রাষ্ট্রের প্রতি দায়বদ্ধতা থেকে আপনার প্রদত্ব রাজস্বের মাধ্যমে দেশের উন্নয়নে অংশীদারিত্বের স্বীকৃতিস্বরূপ ২০১৯-২০২০ করবছরে সর্বোচ্চ করদাতার সম্মাননা ও ট্যাক্স কার্ড পাওয়ায় আপনাকে জানাই কৃতজ্ঞতা ও অনেক অনেক অভিনন্দন’।

এতে বলা হয়েছে, আপনাদের মতো দেশপ্রেমীকদের রাজস্বে এদেশে নির্মিত হয়েছে আমাদের স্বপ্নের প্রকল্প জাতির গর্ব ও অহংকার ‘পদ্মা সেতু’। নির্মিত হয়েছে গাজীপুরের কালিয়াকৈরে বঙ্গবন্ধু হাইটেক সিটি। নির্মাণাধীন রয়েছে বঙ্গবন্ধু টানেল, রূপপুর নিউক্লিয়ার পাওয়ার প্ল্যান্ট, রামপাল পাওয়ার প্রজেক্ট, মেট্রো রেল, মাতারবাড়ী এবং মহেশখালীতে পাওয়ার প্ল্যান্ট, চট্টগ্রাম-কক্সবাজার রেল লিংক, পদ্মা রেল লিংক, পায়রা ও মাতারবাড়ীতে গভীর সমুদ্র বন্দর, চট্টগ্রামের মীরসরাই এলাকায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্পনগর, বাংলাদেশের প্রথম যোগাযোগ ও সম্প্রচার উপগ্রহ বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ, হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তৃতীয় টার্মিনালের কাজ চলমান। নির্মিত হচ্ছে সারা দেশে ১০০টি স্পেশাল ইকোনমিক জোন সেখানে সরাসরি কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা থাকছে ১ কোটি জনগোষ্ঠীর। এছাড়া সারা দেশে মেগা প্রকল্পসহ বাস্তবায়নের পথে রয়েছে অগণিত উন্নয়ন প্রকল্প।

শুভেচ্ছা পত্রে করদাতাদের উদ্দেশ্যে অর্থমন্ত্রী বলেছেন, আপনাদের দৃঢ়ভাবে বলতে পারি আপনাদের দেওয়া রাজস্ব বস্তুনিষ্ঠভাবেই ব্যবহার হচ্ছে। সিংহভাগই ব্যয় করা হচ্ছে এদেশের পিছিয়ে পড়া প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর উন্নয়নে। যাদেও ঘর নেই তাদের ঘর তৈরি করে দেওয়া হচ্ছে। যারা স্কুলে যেতে পারতনা তারা আজ সবাই স্কুলে যাচ্ছে। বছরের প্রথম দিনেই শিক্ষার্থীদের হাতে বিনামূল্যে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে পাঠ্যপুস্তক। তারা প্রায় সবাই কোন না বৃত্তির আওতায় লেখাপড়া শিখছে। স্বপ্ন দেখছে সোনালি দিগন্ত স্পর্শের। প্রধানমন্ত্রী দেশের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জন্য ১১৯টি সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি বলবৎ রেখেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী ও হিরন্ময়ী নেতৃত্বে ও দিক নির্দেশনায় দেশ আজ অনেক দূর এগিয়েছে।

অর্থমন্ত্রী বলেন, আমাদের আরও যেতে হবে বহুদূর। এ পথ চলায় আপনাদের সবাইকে আমাদের বিশেষভাবে প্রয়োজন। আমার মৌলিক করণীয় কাজটি হচ্ছে-আমি, আপনি ও আপনাদের সবাইকে নিয়ে আমাদের পিছিয়ে পড়া সব জনগোষ্ঠীকে দ্রুততম সময়ে অর্থনীতির মূল স্রোতধারায় নিয়ে আসা-যা ছিল জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আজীবনের লালীত স্বপ্ন।

চিঠির শেষে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল করদাতাদের পরিবারের সবার অনাবিল সুখ ও শান্তি কামনা করেছেন।

করদাতা হিসেবে অর্থমন্ত্রীর মেয়ে নাফিসা কামালকেও তার গুলশানের লোটাস কামাল টাওয়ারের ঠিকানায় শুভেচ্ছা জানিয়ে চিঠি দেওয়া হয়েছে বলে সূত্র জানিয়েছে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2020 Mohajog