1. sardardhaka@yahoo.com : adminmoha : Sardar Dhaka
  2. nafij.moon@gmail.com : Nafij Moon : Nafij Moon
  3. rafiqul@mohajog.com : Rafiqul Islam : Rafiqul Islam
  4. sardar@mohajog.com : Shahjahan Sardar : Shahjahan Sardar
সোমবার, ২২ এপ্রিল ২০২৪, ০৪:০৪ পূর্বাহ্ন

চলন্ত বাস থামিয়ে টাকা ছিনতাই, তিন যাত্রী গুলিবিদ্ধ

মহাযুগ নিউজ ডেস্ক
  • আপডেট টাইম : সোমবার, ৬ ফেব্রুয়ারী, ২০১৭
  • ২০৪ বার

প্রতিবেদক : জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় চলন্ত মিনিবাস থামিয়ে ছয় লাখ টাকা ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটেছে। আজ সোমবার দুপুর ১২টার দিকে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় চলন্ত মিনিবাস থামিয়ে সশস্ত্র দুর্বৃত্তরা তিন বাসযাত্রীকে গুলি করে এ টাকা ছিনতাই করে।

গুলিবিদ্ধ যাত্রীরা হলেন আশুলিয়ার সিন্দুরিয়া গ্রামের সানোয়ার হোসেন (৪০) এবং তাঁর দুই সহযোগী সাভার পৌরসভার আটপাড়া এলাকার আবুল হোসেন (৪০) ও একই এলাকার টুটুল মিয়া (৩০)। সানোয়ার হোসেনের দুই পায়ের হাঁটুর ওপরে এবং আবুল হোসেন ও টুটুল মিয়ার ডান পায়ের হাঁটুর নিচে গুলি করে দুর্বৃত্তরা।
স্থানীয় ও থানা-পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, টাকার ব্যাগ ছিল সানোয়ার হোসেনের কাছে। আজ সকাল সাড়ে ১০ টায় তিনি ইসলামী ব্যাংক সাভার শাখা থেকে সাড়ে পাঁচ লাখ টাকা তোলেন। এ ছাড়া তাঁর সঙ্গে আরও ৫০ হাজার টাকা ছিল। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের পোস্ট অফিসে ছয় লাখ টাকা দিয়ে স্থায়ী জামানত খুলতে তিনি আবুল ও টুটুলকে নিয়ে যাচ্ছিলেন। তাঁদের বহনকারী বাসটি সাভার হাইওয়ে থানার অদূরে শেখ হাসিনা যুব উন্নয়ন কেন্দ্রের বিপরীত দিকে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় পৌঁছালে তিনটি মোটরসাইকেলে করে সাত দুর্বৃত্ত মিনিবাসের গতি রোধ করে। এরপর চার দুর্বৃত্ত বাসে ওঠে। তাদের সবার হাতেই ছিল পিস্তল। বাসে উঠে তারা সরাসরি সানোয়ার হোসেনের কাছে গিয়ে টাকার ব্যাগটি ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে। সানোয়ার বাধা দিলে দুর্বৃত্তদের একজন তাঁর দুই পায়ে হাঁটুর ওপর দুটি গুলি করে। অন্য দুর্বৃত্তরা আবুল ও টুটুলের ডান পায়ের হাঁটুর নিচে গুলি করে। এরপর টাকার ব্যাগ নিয়ে দুর্বৃত্তরা বাস থেকে নেমে নির্বিঘ্নে পালিয়ে যায়।

গুলিবিদ্ধ তিনজনকে বাসের দুই যাত্রী ও স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় প্রথমে সাভার উপজেলার স্বাস্থ্য কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। পরে সানোয়ার ও আবুলকে সেখান থেকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। আর টুটুল উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসাধীন।

আশুলিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মহসিনুল কাদির ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, এ ঘটনায় এখন পর্যন্ত মামলা হয়নি। দুর্বৃত্তদের গ্রেপ্তার এবং টাকা উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© All rights reserved © 2023 Mohajog